The path to the image is not correct.

Your server does not support the GD function required to process this type of image.

পরীক্ষার্থীর কান্নায় মানবিক উপাচার্য!
  • নিজস্ব প্রতিবেদক
  • ০৮ নভেম্বর ২০১৯ ১৭:৫৬:২৭
  • ০৮ নভেম্বর ২০১৯ ১৭:৫৬:২৭
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

পরীক্ষার্থীর কান্নায় মানবিক উপাচার্য!

ছবি : সংগৃহীত

নির্ধারিত সময়ের পর ভর্তি পরীক্ষা কেন্দ্রে ঢুকতে না পেরে কান্নারত পরীক্ষার্থীকে পরীক্ষার সুযোগ দিলেন কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে (কুবি) উপাচার্য অধ্যাপক ড. এমরান কবির চৌধুরী। ভুক্তোভোগী ওই পরীক্ষার্থীর নাম ফারহানা খানম। এ সময় আরো কয়েকজন শিক্ষার্থী ভর্তিকেন্দ্রে ঢুকতে চাইলে তাদেরকেও বাধা দেয়া হয়।

৮ নভেম্বর, শুক্রবার বিশ্ববিদ্যালয়টির ২০১৯-২০২০ শিক্ষাবর্ষের স্নাতক (সম্মান) ‘ক’ইউনিটের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। সকাল ১০টা থেকে ১১টা পর্যন্ত চলে এই ভর্তি পরীক্ষা।

ফারহানার অভিভাবক জানান, বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে ১০টা বাজার ১৮ মিনিট পর আসায় ঢুকতে না পেরে তিনি কান্নায় ভেঙে পড়েন। ঢাকা থেকে ভোর ৪টায় রওনা দিয়ে যানজটে পড়ে দেরি হয় তাদের। এতেই তাদের ঢুকতে বাধা দেয় নিরাপত্তারক্ষীরা।

এরপর বিষয়টিতে হস্তক্ষেপ করেন কুবি উপাচার্য। মানবিক বিবেচনায় প্রায় ৩০ মিনিট পর ঢুকতে দেয়া হয় তাকে। একইসাথে আরো একজন দেরিতে আসা ছাত্রীকে পরীক্ষা দিতে দেয়া হয়।

এ বিষয়ে কুবি উপাচার্য অধ্যাপক ড. এমরান কবির চৌধুরী বলেন, ‘মেয়েটি কান্নাকাটি করে পরিস্থিতি ঘোলাটে করছে। মানবিক দিক বিবেচনায় তাকে সুযোগ দেয়া হয়েছে। এমন চার-পাঁচজন ছাড়া মোটামুটি পরীক্ষা সুষ্ঠু ও নির্বিঘ্ন হয়েছে।'

বাংলা/এনএস

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0177 seconds.