• নিজস্ব প্রতিবেদক
  • ১৪ মে ২০১৯ ১৬:২৯:৩৪
  • ১৪ মে ২০১৯ ২২:৫৮:৫১
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

৪৮ ঘণ্টার আল্টিমেটাম দিয়েছেন ছাত্রলীগের পদবঞ্চিতরা

ছবি : সংগৃহীত

ছাত্রলীগের নবঘোষিত কেন্দ্রীয় কমিটি পুনর্গঠনের দাবি জানিয়ে ৪৮ ঘণ্টার সময় বেঁধে দিয়েছেন সংগঠনটির পদবঞ্চিতরা নেতারা। অন্যথায় অনশন ও গণপদত্যাগের হুমকি দেয়া হয়। মঙ্গলবার সকালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়’র (ঢাবি) মধুর ক্যান্টিনে সংবাদ সম্মেলন করে এই হুমকি দেয়া হয়।

এর আগে ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল করেন ছাত্রলীগের কমিটির পদবঞ্চিতরা। পরে সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন ছাত্রলীগের পদবঞ্চিত নেতা সাবেক প্রচার সম্পাদক সাইফুদ্দিন বাবু। এ সময় সংগঠনটির বিভিন্ন পর্যায়ের প্রায় দুই শতাধিক নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।

এ সময় সাইফুদ্দিন বাবু বলেন, ‘যারা ছাত্রলীগে সক্রিয় তারা পূর্ণাঙ্গ কমিটিতে স্থান পায়নি। তাই আগামী ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে কমিটি পুনর্গঠন করতে হবে। এই কমিটিতে জায়গা করে নিয়েছে কিছু বিতর্কিত ভাই ও বন্ধুরা।’

সাইফুদ্দিন বাবু আরও বলেন, ‘মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে আকুল আবেদন অধিকাংশ ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের বাদ দিয়ে যে কমিটি গঠন করা হয়েছে তা ভেঙে দিয়ে অধিক তদন্তের মাধ্যমে একটি সুন্দর, সুষ্ঠু ও অর্থবহ কমিটি করার দাবি জানাচ্ছি।’

ছাত্রলীগের শামসুন্নাহার হল শাখার সভাপতি, ডাকসুর সদস্য ও নতুন কমিটিতে উপ সাংস্কৃতিক সম্পাদক পদ পাওয়া নিপু তন্বী হুমকি দিয়ে বলেন, ‘দাবি মানা না হলে অনশন ও গণপদত্যাগ করা হবে।’

একই সাথে গতকালকের হামলার সাথে জড়িতদের বিচারের দাবিও জানানো হয় ওই সংবাদ সম্মেলনে।

অন্যদিকে, গতকালের হামলায় আহতদের দেখতে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে গিয়ে বিক্ষুব্ধ নেতাকর্মীদের নিকট তোপের মুখে পড়েন ছাত্রলীগ সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন ও সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী।

সম্মেলনের এক বছর পর গতকাল সোমবার বিকেলে ছাত্রলীগের ৩০১ সদস্যের পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করা হয়। নবগঠিত পূর্ণাঙ্গ কমিটিকে বিতর্কিত ও অবৈধ আখ্যা দিয়ে বিক্ষোভ করেছে সংগঠনটির পদবঞ্চিতরা। ওই কমিটিকে অবৈধ ঘোষণা দিয়ে সংবাদ সম্মেলন করার কথা ছিলো ঢাবির মধুর ক্যান্টিনে। কিন্তু সংবাদ সম্মেলন শুরু করার আগেই তাদের উপর হামলা চালায় ছাত্রলীগের নবগঠিত কমিটির সদস্যরা। সেই হামলায় ১০ জনের মত আহত হন।

বাংলা/এনএস

বিজ্ঞাপন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

ছাত্রলীগ কমিটি বিক্ষোভ

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0206 seconds.