• নিজস্ব প্রতিবেদক
  • ১২ এপ্রিল ২০১৯ ২০:৪৪:৩৩
  • ১২ এপ্রিল ২০১৯ ২০:৪৪:৩৩
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

রাফির হত্যাকারীদের ছাড় দেয়া হবে না: প্রধানমন্ত্রী

শেখ হাসিনা। ছবি : সংগৃহীত

ফেনীর সোনাগাজী উপজেলার মাদরাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফির হত্যাকারী কাউকে ছাড় দেয়া হবে না বলে নিজের কঠোর অবস্থান ব্যক্ত করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। শুক্রবার বিকালে গণভবনে আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের আলোচনা সভায় তিনি এমন মন্তব্য করেন।

সভার সূচনা বক্তব্যে দলটির সভানেত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘রাফি হত্যার সঙ্গে যারা জড়িত আছে তাদেরকে ছাড় দেয়া হবে না। তাদের বিচার হবেই।’

তিনি আরো বলেন, ‘নুসরাত জাহান রাফির গায়ে আগুন দিয়ে হত্যা করে তারা জঘন্য কাজ করেছে। এ ধরনের জঘন্য হত্যাকাণ্ডের নিন্দা জানানোর ভাষা আমার নেই।’

প্রধানমন্ত্রী আরো বলেন, ‘অপরাধীদের কয়েকজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তাদের শাস্তি পেতে হবে। এ ঘটনার সঙ্গে আরও যারা জড়িত আছে তাদের খুঁজে বের করা হবে। তারা কেউ রেহাই পাবে না।’

এ সময় তিনি বিএনপির সমালোচনা করে বলেন, ‘মানুষকে পুড়িয়ে হত্যা করার পথ দেখিয়েছে বিএনপি। তারা ইতিপূর্বে গাড়িতে পেট্রলবোমা ছুড়ে জীবন্ত মানুষকে আগুন দিয়ে পুড়িয়ে মেরেছে। যারা এর শিকার হয়েছেন তারাই একমাত্র বুঝতে পারেন এর কত যন্ত্রণা। অনেকে পোড়া শরীর নিয়ে এখনো বেঁচে আছেন। তাদের অনেককেই আমরা সাহায্য সহযোগিতা করছি।’

গত ৬ এপ্রিল সোনাগাজী ইসলামিয়া সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসায় আলিম পরীক্ষার কেন্দ্রে গেলে মাদ্রাসার ছাদে ডেকে নিয়ে রাফির গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে পালিয়ে যায় মুখোশধারী দুর্বৃত্তরা। এর আগে মাদ্রাসার অধ্যক্ষ সিরাজ উদদৌলার বিরুদ্ধে করা শ্লীলতাহানীর মামলা প্রত্যাহারের জন্য রাফিকে চাপ দেয় তারা।

পরে আগুনে ঝলসে যাওয়া রাফিকে প্রথমে স্থানীয় হাসপাতালে এবং পরে ঢামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বুধবার (১০ এপ্রিল) রাত সাড়ে ৯টায় ঢামেক হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাফি মারা যান।

বাংলা/এনএস

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0235 seconds.