• বিদেশ ডেস্ক
  • ০৭ এপ্রিল ২০১৯ ২০:১৫:৫২
  • ০৭ এপ্রিল ২০১৯ ২০:১৫:৫২
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

মুসলিম শিশুদের হত্যার জন্য যুক্তরাষ্ট্র, ইউরোপ দায়ী

ছবি : সংগৃহীত

সিরিয়া,ইয়েমেন এবং আফগানিস্তানে লাখ লাখ মুসলিম শিশু হত্যার জন্য যুক্তরাষ্ট্র এবং ইউরোপের দেশগুলোকে দায়ী করেছেন ক্যাথলিক খ্রিষ্টানদের ধর্মীয় গুরু পোপ ফ্রান্সিস।  পশ্চিমা ধনী দেশগুলো এসব যুদ্ধাঞ্চলে অস্ত্র বিক্রির মাধ্যমে সংঘাত আরো উস্কে দিচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন তিনি।

শনিবার ইতালির মিলানের সান কার্লো ইনস্টিটিউটে শিক্ষক এবং শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে বক্তৃতা দেয়ার সময় তিনি এই মন্তব্য করেন।  পোপ উল্লেখ করেন, যুক্তরাষ্ট্র এবং ইউরোপের ধনী দেশগুলো অস্ত্র বিক্রি করে। আর এসব অস্ত্র সাধারণ জনগণ এবং শিশুদের হত্যায় ব্যবহৃত হয়।  ফলে বিশ্বের বিভিন্ন দেশই যুদ্ধে জড়িয়ে পড়ছে।   

তিনি জানান, অস্ত্রের এতো বড় ব্যবসা না থাকলে আফগানিস্তান, সিরিয়া এবং ইয়েমেনের মত দেশে কখনো যুদ্ধ হতো না।    

পোপ ফ্রান্সিস বলেন, ‘যেসব দেশ অস্ত্র তৈরি এবং বিক্রি করে, যুদ্ধরত দেশের প্রতিটি শিশুর মৃত্যু এবং প্রত্যেক পরিবারের ধ্বংসের জন্য তাদের বিবেকের দায় রয়েছে। ’

এছাড়া খ্রিষ্টানদের ধর্মীয় গুরু পাশ্চাত্যের কট্টরপন্থী নেতাদের অভিবাসন নীতির বিপক্ষে নিজের অবস্থান স্পষ্ট করেন।  ফ্রান্সিস জানান, অভিবাসন প্রত্যাশীরা অপরাধী নয়।  অনেক পশ্চিমা দেশের সরকার তাদের অপরাধ প্রবণতার ব্যাপারে যে উদ্বেগ প্রকাশ করছেন তা ভিত্তিহীন। অভিবাসীদের স্বাগত জানানোর জন্য তিনি প্রতিটি দেশের প্রতি আহ্বান জানান।

পোপ ফ্রান্সিস বলেন, ‘ইতালির বেশিরভাগ অপরাধের জন্য বিদেশিরা দায়ী নয়।  আমাদের মধ্যে এরকম প্রচুর আছে।  নাইজেরিয়ানরা মাফিয়াদের তৈরি করেনি। মাফিয়ারা আমাদের নিজেদেরই মানুষ। ’

পরিশেষে পোপ বলেন, ‘আমাদের প্রত্যেকেরই অপরাধী হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।  অভিবাসীরা আমাদের জন্য প্রাচুর্যই বয়ে এনেছে। কারণ ইউরোপ অভিবাসীদের দিয়েই তৈরি হয়েছে। ’

বাংলা/এফকে

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0199 seconds.