• ক্রীড়া প্রতিবেদক
  • ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ ০১:০৬:২৫
  • ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ ১৪:০৪:২৩
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

বাংলাদেশে হবে আইপিএল?

ছবি : সংগৃহীত

ভারতের ১৭ তম বিধানসভা নির্বাচনের জন্য আসন্ন আইপিএলের ১৪টি ম্যাচ বাংলাদেশে আয়োজন করতে চাচ্ছে বিসিসিআই। আর এজন্য দু-একদিনের মধ্যেই ঢাকা আসছেন বিসিসিআইয়ের সাবেক সভাপতি শশাঙ্ক মনোহর। তিনি মূলত বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনের সাথে আইপিএল আয়োজন এবং সম্ভাব্য তিনটি ভেন্যু (ঢাকা, চট্টগ্রাম, সিলেট) পরিদর্শন করবেন।

এর ফাঁকে শশাঙ্ক শুক্রবার অনুষ্ঠিতব্য বিপিএলের ফাইনাল ম্যাচটিও উপভোগ করবেন। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক সূত্রের বরাত দিয়ে এমন খবর প্রকাশ করেছে কয়েকটি সংবাদমাধ্যম।

আদৌ আইপিএল আয়োজন বাংলাদেশে হবে কিনা তা নিয়ে এখণই শেষ কথা বলা যাবে না। তবে আইপিএল কর্তারা খুব করে চাচ্ছেন বাংলাদেশে ১৪টি ম্যাচ আয়োজন করতে। 

বিসিবি'র সাথে বনি-বনা না হলে তাদের দ্বিতীয় অপশন হবে দুবাই। তবে দুবাইয়ের থেকে আইপিএল কর্তাদের আগ্রহ বেশি থাকবে বাংলাদেশের দিকে। অবশ্য এজন্য সুনির্দিষ্ট কিছু কারণ রয়েছে। তার মধ্যে অন্যতম হচ্ছে- দুবাইয়ের বেশিরভাগ দর্শকই পাকিস্থান সমর্থক। তাই তারা আইপিএলকে কতটা গ্রহণ করবেন সেটা নিয়ে সন্দেহ আছে।

তাছাড়া দুবাইয়ের থেকে বাংলাদেশে ক্রিকেটের জনপ্রিয়তা এখন ঢের বেশি। কারণ আন্তর্জাতিক খেলার পাশাপাশি বাংলাদেশও নিয়মিত আয়োজন করে যাচ্ছে প্রাইভেট টি-টুয়েন্টি লীগ বিপিএল। যেটার পরিচিতি এখন বিশ্বজোড়া, আর দর্শক সাড়াও বেশ। এটাই মূলত আইপিএল কর্তাদের মনে ধরেছে। তাই তারা বাংলাদেশকেই এগিয়ে রাখছেন।

একান্তই যদি তারা বাংলাদেশে আইপিএল আয়োজনে ব্যর্থ হয় তখন তারা বিকল্প হিসেবে দুবাইকেই বেছে নেবেন। উল্লেখ্য, ২০০৯ সালেও এই একই কারণে আইপিএলের ম্যাচ হয়েছিল দক্ষিণ আফ্রিকায়। তবে সেবার নির্দিষ্ট কিছু ম্যাচ নয়, পুরো আইপিএলই হয়েছিল আফ্রিকাতে।

আইপিএল বাংলাদেশে হবে কি না সে সিদ্ধান্ত এখন পুরোটাই নির্ভর করছে বিসিবি কর্তাদের ওপর। শেষ পর্যন্ত বাংলাদেশ ক্রিকেটের কর্তারা যদি শশাঙ্ক মনোহরকে হাসি মুখে বিদায় দেন, তবে বিপিএলের পর আবারো নতুন করে, নতুন উদ্যমে টি-টুয়েন্টির জোয়ারে ভাসবে গোটা দেশ।

বিজ্ঞাপন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

আইপিএল বাংলাদেশ

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0200 seconds.