• নিজস্ব প্রতিবেদক
  • ১১ অক্টোবর ২০১৮ ১২:৫৯:১১
  • ১১ অক্টোবর ২০১৮ ১৬:২১:৪৭
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

ঘূর্ণিঝড় ‘তিতলি’ নিয়ে ঢাকায় ভয়ের কিছু নেই

ছবি: সংগৃহীত

ঘূর্ণিঝড় ‘তিতলি’র প্রভাবে আজও বৃহস্পতিবার রাজধানীতে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি হচ্ছে। কাক ডাকা ভোর থেকেই আকাশ মেঘলা। সকাল ৭টার পর স্বল্প সময়ের জন্য গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি শুরু হয়।

আবহাওয়া অধিদপ্তর জানায়, ঘূর্ণিঝড় ‘তিতলি’ গোপালপুরের কাছ দিয়ে ভারতের ওড়িষ্যা-অন্ধ্র উপকূল অতিক্রম করতে শুরু করেছে। পরবর্তী ২-৩ ঘণ্টার মধ্যে তা উপকূল অতিক্রম করবে। সমুদ্র বন্দরসমূহকে ৪ নম্বর স্থানীয় হুঁশিয়ারি সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়।

আবহাওয়াবিদ রাশেদুজ্জামান বলেন, ঘূর্ণিঝড় তিতলি নিয়ে বাংলাদেশের মানুষের আতঙ্ক বা ভয়ের কোনো কারণ নেই। আজ ভোর থেকে ঘূর্ণিঝড়টি গোপালপুরের কাছ দিয়ে ভারতের ওড়িষ্যা-অন্ধ্র উপকূল অতিক্রম করতে শুরু করেছে। এর প্রভাবে আজসহ আাগামী ২-১ দিন সারা দেশে মেঘলা আবহাওয়াসহ বৃষ্টিপাত হতে পারে ।

এদিকে আবহাওয়া অধিদপ্তরের গতকাল বুধবার সন্ধ্যা ৬টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার পূর্বাভাসে বলা হয়, রাজশাহী, খুলনা, বরিশাল, ঢাকা ও চট্টগ্রাম বিভাগের অধিকাংশ জায়গায় এবং রংপুর, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের অনেক জায়গায় দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে।

তিতলির প্রভাব

আজ বৃহস্পতিবার ভোর সাড়ে ৫টার দিকে ওড়িষ্যা ও অন্ধ্র প্রদেশের উপকূলে আছড়ে পড়ে ঘূর্ণিঝড় তিতলি।

এদিকে টাইমস অব ইন্ডিয়া’র খবরে বলা হয়, অন্ধ্র প্রদেশের শ্রীককুলাম জেলার পলাসায় ঘূর্ণিঝড়ের আঘাতে দুইজন নিহত হয়েচৈন।

এ ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে বঙ্গোপসাগর উত্তাল থাকায় সমুদ্রবন্দরগুলোতে ৪ নম্বর স্থানীয় হুঁশিয়ারি সংকেত জারি রয়েছে। বৈরী আবহাওয়ার কারণে নিরাপত্তার জন্য বাংলাদেশে অভ্যন্তরীণ রুটে নৌযান চলাচল বন্ধ রাখা হয়েছে।

আবহাওয়ার সর্বশেষ বিশেষ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, পশ্চিম-মধ্য বঙ্গোপসাগর ও কাছাকাছি এলাকায় অবস্থানরত প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘তিতলি’আরও সামান্য উত্তর ও উত্তর-পশ্চিম দিকে অগ্রসর ও ঘণীভূত হয়ে পশ্চিম-মধ্য বঙ্গোপসাগর এলাকায় হ্যারিকেনের তীব্রতা সম্পন্ন প্রবল ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

ঘূর্ণিঝড় তিতলি

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.1859 seconds.