• বাংলা ডেস্ক
  • ০৯ আগস্ট ২০১৮ ২১:২০:১৬
  • ১০ আগস্ট ২০১৮ ০০:৫৯:৪২
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

‘শহিদুল আলম আমাকে প্রাণে বাঁচিয়েছিলেন’

ফাইল ছবি

'নিরাপদ সড়ক চাই'  আন্দোলনের বিষয়ে ফেসবুক লাইভ ও আলজাজিরাকে দেয়া সাক্ষাৎকারে দেশের বিরুদ্ধে মিথ্যা তথ্য ছড়ানোর অভিযোগে আলোকচিত্রী শহিদুল আলমকে গ্রেপ্তার করে ডিবি পুলিশ।

এই ঘটনা প্রসঙ্গে আলোচিত ও সমালোচিত লেখিকা তসলিমা নাসরিন বৃহস্পতিবার সকালে এক ফেসবুক স্ট্যাটাস দিয়ে শহিদুল আলমকে স্মৃতিচারণ করেছেন।

পাঠকের উদ্দেশে তসলিমা নাসরিনের  স্ট্যাটাসটি তুলে ধরা হলো: 

‘‘১৯৯৪ সালে জুন মাসে খালেদা জিয়ার সরকার আমার বিরুদ্ধে 'মানুষের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত দিয়েছি' এই অভিযোগ করে বাংলাদেশ ফৌজদারি আইনের ২৯৫/এ ধারায় মামলা করেছিল, গ্রেপ্তারি  পরোয়ানাও জারি করেছিল।

তখন আমার শুভাকাংখীরা উপদেশ দিয়েছিলেন, আমি যেন আত্মগোপন করি, কারণ ধর্মান্ধ পুলিশ অথবা জেলের ভেতর ধর্মান্ধ কয়েদিরা আমাকে খুন করতে পারে, ধর্মীয় অনুভূতি বলে কথা! আমার ওই চরম দুঃসময়ে আমাকে আশ্রয় দেওয়ার সাহস ঢাকা শহরে প্রায় কারোরই ছিল না। রাস্তায় তখন প্রতিদিন আমার ফাঁসির দাবিতে মিছিল করছিল লক্ষ লক্ষ মৌলবাদি।

সেই সময় হাতে গোনা কয়েকজন মানুষ নিজের জীবনের ঝুঁকি নিয়ে তাঁদের বাড়িতে আমাকে লুকিয়ে রেখে আমাকে প্রাণে বাঁচিয়েছিলেন, তাঁদের মধ্যে একজন শহিদুল আলম। নিচের ছবিগুলো ওঁরই তোলা। আমি আজ তাঁর দুঃসময়ে তাঁকে চরম অসম্মান আর হেনস্থা থেকে বাঁচিয়ে আনতে পারছি না, সে ক্ষমতা আমার নেই।

আমি শুধু এইটুকু বলতে পারি, শহিদুল আলমের মতো সভ্য, শিক্ষিত, নির্ভীক মুক্তচিন্তককে ভিন্ন মত প্রকাশের জন্য আজ যে দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে, এ তাঁর নয়, এ গোটা দেশের লজ্জা। আজ শহিদুল আলমের দুঃসময় নয়, আজ বাংলাদেশের দুঃসময়।’’

বাংলা/এমটি/আরএইচ

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.1644 seconds.