• ফিচার ডেস্ক
  • ৩১ মে ২০১৮ ১৭:১৯:২০
  • ০২ জুন ২০১৮ ১৮:২১:০৩
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

গর্ভবতী মহিলারা রোজা রাখতে পারবেন?

ছবি : সংগৃহীত

গর্ভবতী নারীরাও কি রোজা রাখতে পারবেন? এই প্রশ্নটি আমরা সব সময় শুনে থাকি। রমজান মাসে রোজা রাখা নিয়ে গর্ভবতী নারীরা চিহ্নিতও হয়ে পড়েন। তবে চিন্তার কিছু নেই, গর্ভবতী নারীরা রোজা রাখতে পারবেন।

চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, গর্ভবতী হলে রোজা রাখা যাবে কি না, তা নিয়ে অনেক সময় তারা নানা সংশয়ে ভোগেন। তাদের জন্য বলছি, গর্ভবতী নারীরাও কি রোজা রাখতে পারবেন। তবে সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে মেডিকেল চেকআপ এবং চিকিৎসকের পরামর্শ বাধ্যতামূলক বলে জানিয়েছেন তারা।

তবে রোজা রাখার আগে কিছু বিষয় অবশ্যই জানা জরুরি। আসুন জেনে নেই গর্ভবতী নারীরা রোজা রাখার আগে যে বিষয়গুলো অবশ্যই খেয়াল করবেন।

মেডিকেল চেকআপ

গর্ভবতী নারীদের রোজা থাকতে কোনো সমস্যা নেই। তবে সেক্ষেত্রে ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী চলতে হবে। রোজার আগে ডাক্তারের কাছ গিয়ে চেকআপ করানোটা খুব জরুরি।

পুষ্টিকর খাদ্য

গর্ভবতী মায়েরা যেহেতু সারা দিন কিছু খেতে পারবেন না, তাই সাহরিতে পুষ্টিকর খাদ্য বেশি খেতে হবে। খাবারে রাখতে হবে দুধের প্রাধান্য।

ডিম, মাছ, মাংস

রোজায় গর্ভবতী নারীরা ডিম, মাছ-মাংস পরিমাণমতো খেতে হবে। কারণ একজন সাধারণ মানুষের তুলনায় অন্তঃসত্ত্বা মায়ের পুষ্টির প্রয়োজন বেশি। এক্ষেত্রে তারা ডাক্তারের কাছ থেকে রোজার আগে ও পরের সময়ের খাদ্য তালিকা নিয়ে নিতে পারেন। এতে মা ও বাচ্চা দুজনই সুস্থ থাকবেন।

রোজার আগে চেকআপ

গর্ভবতী মায়ের রুটিন চেকআপ ছাড়াও রোজা শুরুর আগে তার চেকআপ করাতে হবে। কারণ মনে রাখতে হবে একজন অন্তঃসত্ত্বা নারী মানে মা ও শিশু দুজনই।

১০ ঘণ্টা ঘুম

রমজানেও সময় বের করে প্রতিদিন ১০ ঘণ্টা ঘুমাতে ও পর্যাপ্ত বিশ্রাম নিতে হবে গর্ভবতী মাকে।

বিজ্ঞাপন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

গর্ভবতী রোজা

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.1637 seconds.