• বিদেশ ডেস্ক
  • ২০ মে ২০১৮ ১৫:০৭:৫৮
  • ২১ মে ২০১৮ ১৩:৪৭:৫৮
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

‘আমাকে শেষ করে দিতে চেয়েছিলেন তারা’

আনোয়ার ইব্রাহিম। ছবি : সংগৃহীত

‘আমি কখনই নাজিব রাজাককে সমর্থন করিনি। তার বিরুদ্ধে সবসময় আমার জোরালো দৃষ্টিভঙ্গি ছিল। পরে আমি তার ব্যক্তিগত আক্রোশের শিকার হয়েছি। যে কারণে তিনি আমাকে শেষ করে দিতে চেয়েছিলেন।’ মাত্র কয়েকদিন আগেই কারাগার থেকে মুক্তি পাওয়া মালয়েশিয়ার সাবেক উপপ্রধানমন্ত্রী আনোয়ার ইব্রাহিম কথাগুলো বলেছেন।

১৯৯৮ সালে মাহাথির মোহাম্মদ তাকে উপপ্রধানমন্ত্রীর পদ থেকে বরখাস্ত করেন। এরপর সমকামিতার অভিযোগে তাকে কারাগারে পাঠানে হয়। ২০০৪ সালে ছাড়া পাওয়ার আগে ছয় বছর তাকে নির্জন কারাবাসে রাখা হয়। এ সময়ে পরিবার ও স্বজনদেরও তার সঙ্গে দেখা করতে দেয়া হয়নি।

এরপর রাজনীতিতে ফিরে আসার সুযোগ পেয়ে ২০১৩ সালের নির্বাচনে তিনি বিরোধী দল পিকেআরের হয়ে লড়েন। নির্বাচনে তার দল হেরে যায়। তবে ভোটের হিসাবে এগিয়ে ছিল। এতে নাজিব রাজাক ভয় পেয়ে সমকামিতার অভিযোগে ফের আনোয়ারের বিচার শুরু করেন।

২০১৫ সালে তাকে আবার কারাগারে পাঠানো হয়।

আনোয়ার ইব্রাহিম বলেন, ‘এটি সহজ কিছু ছিল না। ২০১৩ সালের নির্বাচন যদি অবাধ ও সুষ্ঠু হতো, আমরা জয়ী হতে পারতাম। আমাকে আবার কারাগারে যেতে হতো না।’

তিনি বলেন, আমি সবসময় গণতন্ত্র, স্বাধীনতা, ও মুক্তচিন্তার কথা বলেছি। কিন্তু যখন আপনি এটি উপলব্ধি করবেন, তখন এর মধ্যে মতপার্তক্য পাবেন। আপনি এ চিন্তাধারার বেশি মূল্যায়ন করবেন।

আনোয়ার বলেন, ‘কিন্তু আপনার ক্ষেত্রে যখন এটি অস্বীকার করা হবে, তখন স্বাধীনতা হবে আপনার জন্য নির্যাতন ও টিকে থাকার কারণ।’

সম্প্রতি রাজার নিঃশর্ত ক্ষমা পেয়ে কারাগার থেকে মুক্তি পেয়েছেন আনোয়ার ইব্রাহিম। আবার দেশটির চতুর্দশ নির্বাচনে মালয়েশিয়ার জনগণ তার সংস্কার কর্মসূচির প্রতি সমর্থন দিয়েছেন।

উল্লেখ্য, ১৯৫৭ সালে ব্রিটিশদের কাছ থেকে স্বাধীন হওয়ার পর মালয়েশিয়ায় এই প্রথম কোনো বিরোধী সরকার ক্ষমতায় এলো।

সূত্র : গার্ডিয়ান

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.1627 seconds.