ক্রীড়া ডেস্ক

অন্যকে জানাতে পারেন:

ছবি: সংগৃহীত

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সিরিজের প্রথম পর্বটা ভালো হয়নি বাংলাদেশের। দুটি টেস্টেই বড় ব্যবধানে হারতে হয়েছে টাইগারদের। টেস্টের পর এবার ওয়ানডে সিরিজে একমাত্র প্রস্তুতি ম্যাচে ব্যাটিং বিপর্যয়ের মধ্যে সাকিব আল হাসানের ৬৮ রান এবং সাব্বির রহমানের ব্যক্তিগত ৫২ রানে ভর করে সব ৪৮ ওভার ১ বলে সব কয়টি উইকেট হারিয়ে দক্ষিণ আফ্রিকাকে ২৫৬ রানের লক্ষ্য দিয়েছে বাংলাদেশ।

টেস্ট সিরিজের মতো রঙিন পোশাকেও ব্যর্থ হয়েছেন টাইগার ব্যাটসম্যানরা। ওপেনিং থেকে শুরু করে টপ অর্ডার ব্যাটসম্যানরও ব্যাট হাতে জ্বলে উঠতে পারেননি। ওয়ানডে সিরিজের আগে বৃহস্পতিবার ব্লুমফন্টেইনে একমাত্র প্রস্তুতি ম্যাচে স্বাগতিক দলটির বিপক্ষে টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাংলাদেশ। ইনজুরির কারণে এই ম্যাচে নেই তামিম ইকবাল।

ব্যাট করতে নেমে ফ্রিলিংকের বলে সিবোটোর হাতে ধরা পড়েন সৌম্য; মাত্র ৩ রান করেন। এর পর দ্রুতই ফিরে যান আরেক ওপেনার ইমরুল কায়েস। ফ্রিলিংকের দ্বিতীয় শিকার হন ইমরুল। কায়েস মাত্র ২৭ রান করেন। ব্যাট হাতে ব্যর্থ হন লিটন দাস। তিনি ৮ রান করে সিবোটের বলে সাজঘরে ফেরেন।

লিটনের বিদায়ের পর ফিরে যান মুশফিকুর রহিমও। ফাগিসোর বলে ব্যক্তিগত ২২ রান করে প্যাভিলিয়নের পথ ধরেন মুশফিক। এরপর দলের বিপর্যয় সামাল দেয়ার চেষ্টা করেন সাকিব আল হাসান এবং মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। তাদের জুটিতে আসে ৫৭টি গুরুত্বপূর্ণ রান। ফিরে যান রিয়াদ। তিনি ২১ রান করে মাল্ডারের বলে লেগ বিফোরের ফাঁদে পড়েন।

এরপর দলের হাল ধরেন সাকিব ও সাব্বির। সাকিব অর্ধশতক তুলে নেন। তাদের জুটিতে আসে ৭৬ রান। সাকিব ৬৭ বলে ৬৮ রান করে ফাগিসোর বলে ডুমিনির হাতে ধরা পড়েন। সাকিব তার ইনিংসটি ৯টি চারে সাজান।

৫৪ বলে ব্যক্তিগত ৫২ রান করে আউট হলেন সাব্বির রহমান। তার পরপরই মাত্র ১২ রান করে ফিরে যান নাসির হোসেনও। এরপর ব্যাটে নেমে ১৩ বলে ১৭ রান করেন টাইগার অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা। তিনি আউট হওয়ার পর এক বলেই বোল্ড হন কাটারমাস্টার মুস্তাফিজুর রহমান। ১৯ বলে ব্যক্তিগত ১৩ রান করে অপরাজিত থাকেন নতুন মুখ মুহাম্মাদ সাইফুদ্দিন।

আপনার মন্তব্য

advertisement